ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিববঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • রোববার   ০৫ এপ্রিল ২০২০ ||

  • চৈত্র ২২ ১৪২৬

  • || ১১ শা'বান ১৪৪১

আজকের ময়মনসিংহ
১৪০

রোবট গাড়ির জন্য ‘স্মার্ট সিটি’ তৈরি করবে টয়োটা!

আজকের ময়মনসিংহ

প্রকাশিত: ১৫ জানুয়ারি ২০২০  

দুই হাজার ব্যক্তির বসবাসের উপযোগী একটি  "ভবিষ্যতের শহর" এর পরিকল্পনা উন্মোচন করেছে গাড়ি প্রস্তুতকারক কোম্পানী টয়োটা। যেখানে স্ব-চালিত যানবাহন, স্মার্ট প্রযুক্তি এবং রোবোটের সহায়তায় বসবাসের পরীক্ষা করবে তারা। উভেন সিটি নামে অভিহিত এই উচ্চাভিলাষী এই প্রকল্পটি আগামী বছর টোকিও থেকে ৬০ মাইল দূরে জাপানের মাউন্ট ফুজি পাদদেশে শুরু হবে।

জনগণের ব্যবহৃত দালানকোঠা এবং যানবাহনগুলি ডেটা এবং সেন্সরের মাধ্যমে সংযুক্ত থাকবে এবং একে অপরের সাথে যোগাযোগ করার সাথে সাথে ভার্চুয়াল এবং শারীরিক উভয় ক্ষেত্রেই কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা প্রযুক্তি পরীক্ষা করতে সক্ষম হবে।

এ প্রকল্পটি ঘোষণা করার সময় লাস ভেগাসের কনজিউমার ইলেক্ট্রনিক্স শো (সিইএস)-তে টয়োটার সিইও আকিও টয়দা নতুন শহরটিকে একটি 'লিভিং ল্যাবরেটরি' হিসাবে বর্ণনা করেছেন। যা গবেষক, বিজ্ঞানী এবং প্রকৌশলীদের একটি বাস্তবসম্মত পরিবেশে উদীয়মান প্রযুক্তির পরীক্ষার অনুমতি দেবে। আকিও টয়দা বলেন, "আমরা এর সম্ভাব্যতা সর্বাধিক করে তুলছি। আমরা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাকে প্রসারিত বুদ্ধিতে রূপান্তর করতে চাই।"

নতুন এই উন্নয়নটি ১৭৫ একর জুড়ে একটি সাইটে সেট করা হবে যাতে আগে টয়োটা কারখানা ছিল। শহরটিকে সম্পূর্ণরূপে টেকসই হিসাবে বর্ণনা করে সংস্থাটি বলেছে, প্রকল্পটি হাইড্রোজেন জ্বালানী কোষ এবং ছাদে সোলার প্যানেল দ্বারা পরিচালিত হবে। কেবলমাত্র সম্পূর্ণ স্ব-চালিত এবং শূন্য-নির্গমনকারী গাড়িগুলিকে এর রাস্তায় চলার অনুমতি দেওয়া হবে। টয়োটা ই-প্যালেটস নামে পরিচিত স্ব-চালিত যানবাহন সরবরাহ ও খুচরা উদ্দেশ্যে ব্যবহৃত হবে।

 

ছবিঃ কাঠের তৈরি রোবোটিক্স প্রযুক্তির বাড়ি

ছবিঃ কাঠের তৈরি রোবোটিক্স প্রযুক্তির বাড়ি

উভেন সিটিতে প্রায় ২ হাজার লোকের বাসস্থান হবে বলে আশা করা হচ্ছে। টয়োটা জানিয়েছে, প্রথমে ফার্মের কর্মচারী এবং তাদের পরিবার এই সিটির বাসিন্দা হবেন। তার পাশাপাশি অবসরপ্রাপ্ত, খুচরা ব্যবসায়ী, গবেষক এবং অন্যান্যরা এই প্রকল্পের অংশীদার হবেন।

প্রকল্পটি জাপানি গাড়ি প্রস্তুতকারক এবং ডেনিশ আর্কিটেকচার ফার্ম বারজার ইঙ্গেলস গ্রুপের (বিআইজি) সহযোগিতায় একটি মাস্টার প্ল্যান তৈরি করেছে। সাইটে বিল্ডিংগুলি প্রাথমিকভাবে কাঠ দিয়ে তৈরি করা হবে এবং আংশিকভাবে রোবোটিক্স প্রযুক্তি ব্যবহার করে নির্মিত হবে। তবে নকশাগুলি জাপানের অতীতকে অনুপ্রেরণা হিসেবে দেখবে।

উভেন সিটির বাড়িগুলো নতুন প্রযুক্তি 'হোম-রোবোটিকস' পরীক্ষার সাইট হিসাবে কাজ করবে। এই স্মার্ট বাড়িগুলি সেন্সর-ভিত্তিক কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ব্যবহার করে স্বয়ংক্রিয়ভাবে কাজ করবে, যেমন ফ্রিজ বন্ধ করা কিংবা ময়লা বের করা। এমনকি মানুষ কতটা স্বাস্থ্যবান তা বিবেচনা করে তার যত্ন নেবে। বিদ্যুৎ সংরক্ষণ এবং জলের পরিস্রাবণের সুযোগগুলি মাটির নিচে লুকানো থাকবে।

যে যুগে প্রযুক্তি, সোশ্যাল মিডিয়া এবং অনলাইন আমাদের প্রাকৃতিক মিলনের স্থানগুলি প্রতিস্থাপন ও অপসারণ করছে, সে যুগে নগর অঞ্চলে মানুষের মিথস্ক্রিয়া জাগ্রত করার উপায়গুলি আবিষ্কার করবে উভেন সিটি। বিআইজি বলেছে, এটি ২০২১ সালে শুরু হবে। প্রকল্পের প্রথম ধাপের নির্মাণকাজে এক ডজনেরও বেশি সমন্বিত কাঠামো থাকবে। আনুমানিক সমাপ্তির জন্য কোনও তারিখ দেওয়া হয়নি।

আজকের ময়মনসিংহ
আজকের ময়মনসিংহ
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর