ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিববঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • সোমবার   ০১ মার্চ ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ১৬ ১৪২৭

  • || ১৭ রজব ১৪৪২

আজকের ময়মনসিংহ

পাঁচ কারণে খালি পেটে পানি পান করা খুব জরুরি

আজকের ময়মনসিংহ

প্রকাশিত: ৯ এপ্রিল ২০২০  

পানি দেহের জন্য খুবই জরুরি। তবে অবশ্যই তা পর্যাপ্ত পরিমাণে হওয়া চাই। কারণ কম পানি পানে দেহে নানা রকম সমস্যার সৃষ্টি হয়।  এক্ষেত্রে সব থেকে বেশি জরুরি হচ্ছে সকালে ঘুম থেকে উঠে খালি পেটে পানি পান করা।

ভারতের বিখ্যাত চিকিৎসক দেবী শেঠীর মতে, এই কাজ করলে দীর্ঘ বয়স পর্যন্ত আমাদের দেহে তারুণ্য টিকে থাকবে। শুধু তাই নয়, খালি পেটে পানি পানে শরীরের জটিল সব রোগ অল্প দিনেই সেরে যায় বলে মনে করেন চিকিৎসকরা। তাই অবশ্যই সকালে খালি পেটে পানি পানের অভ্যাস করুন। চলুন এবার জেনে নেয়া যাক খালি পেটে পানি পানে পাঁচটি স্বাস্থ্য উপকারিতা সম্পর্কে- 

চর্বি কমাতে সাহায্য করে

অনেকেই বাড়তি ওজন কমাতে বিভিন্ন ত্রকম পদ্ধতি অবলম্বন করেন। তাদের জন্য বিনা পরিশ্রমের দাওয়াই হলো সকালে খালি পেটে আধা লিটার পানি পান করা। এতে করে মেটাবলিজম অর্থাৎ শরীরে চর্বি না জমে চর্বি পোড়ানোর প্রক্রিয়া খুব দ্রুত হয়। ফলে ওজন কমাতে খালি পেটে পানি পান করা বেশ কার্যকর পদ্ধতি মনে করেন ডায়েট বিশেষজ্ঞরা।

হজম প্রক্রিয়া স্বাভাবিক করে

রাতে দীর্ঘ সময় ঘুমিয়ে থাকার কারণে আমাদের হজম প্রক্রিয়া লম্বা একটা অবসর পায়। সকালে এক গ্লাস পানি পান করলে হজম প্রক্রিয়া দ্রুত সময়ের মধ্যে স্বাভাবিকভাবে কাজ করতে শুরু করে। যারা হজমজনিত সমস্যায় ভোগেন, সকালে খালি পেটে পানি পানের অভ্যাস করুন, অল্পদিনের মধ্যেই সমস্যা ঠিক হয়ে যাবে।

অনেক রোগের এক সমাধান

প্রতিদিন সকালে মাত্র এক গ্লাস পানি খেলে বমি ভাব, গলার সমস্যা, মাসিকের সমস্যা, ডায়রিয়া, আমাশয়, আর্থ্রাইটিস, মাথা ব্যথা ও কৌষ্ঠকাঠিন্যের মত জটিল রোগ সেরে যায় বলে গবেষণায় প্রমাণিত হয়েছে।

কিডনির পাথর প্রতিরোধ

ঘুম থেকে জেগেই পানি পান কিডনিতে পাথর এবং মূত্রথলির ইনফেকশন হওয়া প্রতিরোধ করে। এছাড়া খালি পেটে পানি পান করলে পাকস্থলির এসিড পাতলা হয়, যে এসিড কিডনির পাথর সৃষ্টির জন্য দায়ী। পর্যাপ্ত পরিমাণ পানি পান করলে টক্সিন তথা বিষাক্ত পদার্থ দ্বারা সৃষ্ট বিভিন্ন ধরনের ব্লাডার ইনফেকশন থেকে সুরক্ষিত থাকা যায়।

ত্বককে করে সজীব ও উজ্জল

শরীর থেকে যত টক্সিন তথা বিষাক্ত পদার্থ দূর হবে ত্বক ততই উজ্জ্বল হবে। দেহে সবচেয়ে বেশি টক্সিন জমে রাতে ঘুমোনোর সময়ে। তাই নিয়মিত খালি পেটে পানি পান করলে শরীর থেকে টক্সিন বেরিয়ে যায়, ত্বক হয়ে ওঠে আরো উজ্জল ও লাবণ্যময়।