ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিববঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • মঙ্গলবার   ০২ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৮ ১৪২৭

  • || ১০ শাওয়াল ১৪৪১

আজকের ময়মনসিংহ
১১৩

ঘরে ফিরল অপহৃত তিন যমজ বোনই, আটক ৬

আজকের ময়মনসিংহ

প্রকাশিত: ১৯ জুন ২০১৯  

ময়মনসিংহ জেলার ফুলপুর উপজেলা থেক নিখোঁজ তিন যমজ বোনের একজন আবিদা সুলতানা  পপিকে শেরপুর জেলার নখলা উপজেলার গৌরদ্ধার থেকে গত সোমবার উদ্ধার করার পর  মঙ্গলবার গভীর রাতে অপর দুই বোনকেও উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ নিয়ে অপহৃত তিনজনই উদ্ধার হলো। এ ব্যাপারে ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে ছয়জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। 

জানা যায়, সোমবার উদ্ধার হওয়া আবিদা সুলতানা পপির কাছ থেকে তথ্য নিয়ে ময়মনসিংহ ডিবি পুলিশ ও ফুলপুর পুলিশের একটি দল শেরপুর জেলার ঝিনাইগাতী থানার নকশী বাজার গ্রামের জনৈক জুয়েলের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে শাহানা সুলতানা সোমা ও রাজিয়া সুলতানা চম্পাকে উদ্ধার করে। এ সময় মুন্না মিয়া, মাসুদ রানা, রুপচান মিয়া, মোমেন মিয়া, সোমাইয়া রাহা ও জুয়েল মিয়াকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তাদের প্রত্যেকের বাড়ি শেরপুর জেলার ঝিনাইগাতী থানা বলে জানা গেছে। 

এ ব্যাপারে অপহৃত তিন কন্যার পিতা আব্দুর রহমান বাদী হয়ে ফুলপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ (সংশোধনী /৩) এর ৭/৩০ ধারায় মামলা করেন। উদ্ধারকৃত তিন বোনের ডাক্তারি পরীক্ষা করা হবে বলে জানান ফুলপুর থানার ওসি ইমারত হোসেন গাজী।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার রাত ১১টার পর ফুলপুরের দক্ষিণ ভাইটকান্দির নিজ পিত্রালয় থেকে ভাইটকান্দি উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির তিন ছাত্রী যমজ তিন বোন পপি, সোমা ও সুলতানাকে বখাটেরা জোরপূর্বক অপহরণ করে নিয়ে যায়।

ময়মনসিংহ বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর