ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিববঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • বৃহস্পতিবার   ০৪ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২১ ১৪২৭

  • || ১২ শাওয়াল ১৪৪১

আজকের ময়মনসিংহ
৬৪

ইমরান খান সরকারের উপর ৩০০০ বিলিয়ন ঋণের বোঝা

আজকের ময়মনসিংহ

প্রকাশিত: ১০ অক্টোবর ২০১৯  

ইমরান খান সরকারের আমলে মন্দা ও ঋণ নেওয়ায় রেকর্ড গড়ল ইসলামাবাদ। ইতিমধ্যেই ৩০০০ বিলিয়নের ঋণ চেপেছে পাকিস্তান সরকারের ঘাড়ে। পরিসংখ্যান বলছে, এর আগে কখনও এত ঋণ আর অনুদান নেয়নি পাকিস্তান। খবর কলকাতা ২৪৭।

ইমরান খানের সরকারের প্রথম বছরেই এই বিপুল পরিমাণে ঋণের বোঝা চেপেছে পাকিস্তানের ঘাড়ে। দিন কয়েক আগেই দেশ চালাতে পুরোপুরি ব্যর্থ ইমরান খান, এই দাবি তুলে পথে নামে পাকিস্তানের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় সংগঠন। তাদের দাবি ছিল পদে বসে থাকার কোনও যোগ্যতাই তার নেই। যে এক বছর ক্ষমতায় রয়েছে ইমরান খানের তেহরিক ই ইনসাফ, সেই গোটা বছর ধরেই অর্থসংকটে ভুগছে পাকিস্তান। 

এদিকে, এই এক বছরে পাকিস্তানি মুদ্রায় ৭৫০৯ বিলিয়নের মন্দা তৈরি করেছে ইমরান খান সরকার। স্টেট ব্যাংক অব পাকিস্তানকে উদ্ধৃত করে পাকিস্তান মিডিয়া জানাচ্ছে, ২০১৮ সালের আগস্ট থেকে ২০১৯ সালের আগস্ট পর্যন্ত ২৮০৪ বিলিয়ন ধার করা হয়েছে বাইরের দেশগুলো থেকে। আবার ৪৭০৫ বিলিয়ন ধার করেছে দেশের অভ্যন্তরীণ ক্ষেত্রগুলো থেকে।
স্টেট ব্যাংকের নথি বলছে, চলতি অর্থনৈতিক বছরের প্রথম ত্রৈমাসিকে ঘাটতি রয়েছে ১.৪৩ শতাংশ। ইমরান খান ক্ষমতায় আসার আগে যেখানে ঋণের পরিমাণ ছিল ২৪,৭৩২ বিলিয়ন, সেই ঋণ এখন দাঁড়িয়েছে ৩২,২৪০ বিলিয়নে। রাজস্ব আদায়ের কথা ছিল ১ ট্রিলিয়ন, সেখানে আদায় হয়েছে ৯৬০ বিলিয়ন। ফলে চরম বিপাকে ইমরান খান সরকার।

আন্তর্জাতিক বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর