ব্রেকিং:
বিয়ে বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণ! চামড়া সংরক্ষণ যথাযথভাবে করা হয়েছে: শিল্প সচিববঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড তদন্তে কমিশন গঠনের দাবি তথ্যমন্ত্রীর ‘এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, বাতাসে চক্রান্তের গন্ধ’ ‘চিকিৎসকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বিদেশে পাঠানো হবে’
  • বৃহস্পতিবার   ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ||

  • ফাল্গুন ১৫ ১৪২৬

  • || ০৩ রজব ১৪৪১

আজকের ময়মনসিংহ
৮৭

অ্যাপসের মাধ্যমেই দূর হবে ‘নিঃসঙ্গতা’

আজকের ময়মনসিংহ

প্রকাশিত: ২৪ আগস্ট ২০১৯  

প্রিয়জনের থেকে আপনি দূরে আছেন অথবা আপন কেউ আপনাকে ছেড়ে চলে গেছে। যদি এই কারণে আপনি নিঃসঙ্গতায় ভুগে থাকেন তাহলে সেটি এখন থেকে দূর করবে আপনার হাতের মুঠোয় থাকা মোবাইল নামের যন্ত্রটি।  
শুনে একটু অবাক হলেই এমনই অ্যাপস নির্মাণ করেছে ভারতের উত্তর প্রদেশের নয়ডার পাঁচ স্কুলছাত্রী। ‘মৈত্রী’ নামের এই অ্যাপসটি প্রিয়জন থেকে দূরে থাকা মানুষের নিঃসঙ্গতা দূর করতে বলে দাবি তাদের।

নয়ডা অ্যামিটি ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের পঞ্চকন্যা- অনন্যা গ্রোভার, আনুশকা শর্মা, আরিফা, বনিষ্কা যাদব এবং বসুধা সুধীন্দ্র বানায় এই অ্যাপস।

আনন্দবাজার পত্রিকা জানায়, মৈত্রী নামে এই স্মার্টফোন অ্যাপসের মাধ্যমে দূর করা যাবে মানুষের নিঃসঙ্গতা। মূলত অনাথ আশ্রমের শিশু এবং বৃদ্ধাশ্রমের নিঃসঙ্গ মানুষদের মধ্যে মেলবন্ধনে সহায়তা করবে এই অ্যাপস।

গত বছর দাদা-দাদিকে অল্প দিনের ব্যবধানে হারিয়েছে অনন্যা গ্রোভার। দাদির প্রয়াণে দাদার একাকিত্ব অনন্যাকে মর্মাহত করে। বিষয়টি স্কুলের বন্ধুদের সঙ্গে শেয়ার করে সে। সেখান থেকেই মৈত্রী অ্যাপের যাত্রা শুরু।

মৈত্রী টিম জানায়, তাদের কাজ শুরু হয়েছে চলতি বছরের মার্চ মাস থেকে। অ্যাপটি সক্রিয় হয়েছে জুলাই থেকে। অনাথ আশ্রম এবং বৃদ্ধাশ্রম কর্তৃপক্ষরাও ডাউনলোড করছেন এই অ্যাপ। এখন পর্যন্ত এই অ্যাপের আওতায় আছে সাতটি অনাথাশ্রম এবং তেরোটি বৃদ্ধাশ্রম।
অ্যাপটির মাধ্যমে অনাথ আশ্রমের শিশুরা এবং বৃদ্ধাশ্রমের বৃদ্ধ-বৃদ্ধারা এক সঙ্গে কিছুটা হলেও সময় কাটাতে পারছে, এটিই আনন্দদায়ক মৈত্রী টিমের কাছে।

আজকের ময়মনসিংহ
আজকের ময়মনসিংহ
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর